পাটক্ষেত থেকে অর্ধনগ্ন অন্তঃসত্ত্বা এনজিও কর্মীর মরদেহ উদ্ধার

আজ সন্ধ্যায় ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলার পৌর সদরের চৌধুরী কান্দা সদরদী গ্রামের পাটক্ষেতের ভেতর থেকে নূপুর সাহা (২৫) নামের নারী এনজিও কর্মীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তিনি ভাঙ্গা পৌরসভার রায়পাড়া সদরদী গ্রামের কাত্তিক রায়ের স্ত্রী। আজ বুধবার ৮ জুন সন্ধ্যায় খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ফরিদপুর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানোর প্রস্তুতি নিচ্ছিল।

এ বিষয়ে ভাঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সেলিম রেজা জানান, মঙ্গলবার সকালে নূপুর সাহা তার কর্মস্থল পৌরসদরের হোগলাডাঙ্গি গ্রামের আদ-দ্বীন এনজিওর কিস্তির টাকা উত্তোলনের জন্য বের হওয়ার পর থেকেই তার কোনো খোঁজ পাচ্ছিল না পরিবার ও অফিসের লোকজন।

তিনি আরও জানান, বুধবার বিকেলে এলাকাবাসী স্থানীয় মামুন শেখের পাটক্ষেতের ভেতরে ওই নারীর অর্ধনগ্ন লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে থানা পুলিশ ও ফরিদপুর থেকে সিআইডির ক্রাইম সিন ইউনিটের সদস্যরা ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। এছাড়া তিনি আরও জানান, তদন্ত না করে প্রকৃত ঘটনা সম্পর্কে এখনই কিছু বলা যাচ্ছে না।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, মরদেহ দেখে ধারণা করা যায়, হয়তো ওই নারীকে ধর্ষণের পর হত্যা করে পাটক্ষেতে ফেলে রেখে গেছে দুর্বৃত্তরা। নিহত নূপুরের দুই বছর বয়সী একটি সন্তান রয়েছে। এছাড়াও তিনি ছয় মাসের অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন বলেও জানিয়েছে পরিবারের সদস্যরা

Leave a Reply

Your email address will not be published.